Breaking News

সাইকেল র‍্যালী করে বার্তা “নির্বাচন হোক রক্তপাতহীন”

Post Views: website counter

 

রাজ্যে নির্বাচনের দামামা বাজতেই “খেলা হবে” স্লোগানে মেতেছে শাসক – বিরোধী সকল রাজনৈতিক দল ।স্বাভাবিক কারনে “খেলা হবে” স্লোগানের মানে হিসাবে সাধারন মানুষের মনে ফুটে উঠেছে হানাহানি,মারামারি,খুন ,সন্ত্রাসের ছবি।পশ্চিমবাংলার এই চেনা নির্বাচনী ছকে আতংকিত রাজ্যের সাধারন মানুষ।সেই আতংক কাটাতে এবং মানুষের মধ্যে সচেতনতা গড়ে তুলতে

বাংলাতে আবাধ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচনে আর্জি নিয়ে কাঁথি থেকে দিল্লি পর্যন্ত সাইকেল র‍্যালি করছে দুই যুবক।

পূর্ব মেদিনীপুর জেলার কাঁথির পোষ্ট অফিস মোড় এর বিবেকানন্দ মুর্তির পাদদেশ থেকে শান্তিপূর্ন ভোটের বার্তা নিয়ে সকালে পূর্ব মেদিনীপুর দুই যুবক দিল্লি উদ্দেশ্য যাত্রা শুরু করেন। এই সফরের মধ্যে রাজ্যপাল থেকে মূখ্য নির্বাচনী আধিকারিক এবং আম জনতার কাছে তাদের বার্তা পৌঁছে দেবেন। গত বিধানসভা নির্বাচনে বেশ কিছু জায়গায় হিংসা ঘটনার ঘটে ছিল। বেশ কয়েকজনের প্রান যাওয়ার ঘটনার ঘটে ছিল। এই নির্বাচন রক্তপাত হীন দাবিতে যাত্রা করলো। রক্তপাতে ঘটনার যাতে পুনরাবৃত্তি না হয় তার বার্তা নিয়ে কাঁথি থেকে দিল্লি পর্যন্ত প্রায় সাড়ে চার হাজার কিলোমিটার যাত্রা শুরু করলো। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার দুই যুবক হলেন কোলাঘাটে বাসিন্দা কৃষ্ণেন্দু বেরা ও চন্ডীপুরে বাসিন্দা  অর্পন এিপাটি।

সফরকারী দুই যুবক কোলাঘাটে বাসিন্দা কৃষ্ণেন্দু বেরা ও চন্ডীপুরে বাসিন্দা অর্পন ত্রিপাটি বলেন ” মায়েদের শুভেচ্ছা নিয়ে দিল্লি উদ্দোশ্যের যাত্রা শুরু করলাম। আগামী ৪০ দিন ধরে প্রায় সাড়ে চার হাজার কিলোমিটার সাইকেল চালিয়ে পথ অতিক্রম করবো। রক্তপাতহীন যাতে ভোট হয় তার বার্তা নিয়ে এই সাইকেল করে অভিযান। ভোটে যাতে কেউ হিংসার ঘটনায় জড়িয়ে না পড়ে তার জন্য এই কর্মসূচী। তারা আরও বলেন গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে বেশ কয়েকজন প্রাণ হারিয়ে ছিলেন। স্বামী ও স্ত্রী পুড়িয়ে মারা হয়েছিল “।

ভোটের প্রাক্কালে এই দুই যুবকের এমন মহান বার্তা নিয়ে অভিনব র‍্যালিতে অনেকের রীতিমত আপ্লূত। শ্রাবনী সামন্ত নামের এক মহিলা বলেন ‘এমন দাবিতে দুরপাল্লা সাইকেল র‍্যালি আগে কখনো দেখেনি। এমন উদ্যোগ সম্ভবত রাজ্যে প্রথম। পূর্ব মেদিনীপুরে বাসিন্দা হিসাবে জেলার দুই যুবকের এমন উদ্যোগকে কুর্নিশ জানাই “।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *