Breaking News

প্রায় ২০০ বছরের পুরানো ভবন ভেঙে হচ্ছে পটাশপুর থানার নতুন ভবন:বরাদ্দ তিন কোটি টাকা

Post Views: website counter

 

রাজ্যে বিগত বাম সরকারের আমলে প্রতি বছর নিয়ম করে দুই-তিন বার বন্যার কবলে পড়তো পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পটাশপুর।রাজ্যে ক্ষমতা বদলের পরে মুখ্যমন্ত্রীর চেয়ারে মমতা ব্যানার্জী বসার পরেই পরিস্থিতির বদল ঘটেছে।উন্নতি হয়েছে আইন শৃঙ্খলার।এবার সেই বিষয়ে পরিকাঠামো উন্নয়নে গুরুত্ব দিলেন মমতা।তাই পটাশপুর থানার পুরনো ভবন ভেঙে নতুন ভবন নির্মানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্যের সরাষ্ট্র মন্ত্রক।সরাষ্ট্র মন্ত্রকের পরামর্শ মেনে রাজ্যের অর্থ মন্ত্রক পটাশপুর থানার প্রস্তাবিত নতুন ভবন নির্মানের জন্যে বরাদ্দ করেছে প্রায় তিন কোটি টাকা।

ইতিহাস বলছে দেশে ব্রিটিশ শাসন চলাকালীন ১৮৩০ সালে পটাশপুর বাজারে এই থানা তৈরি করা হয়েছিল। ইতিহাস থেকে আরো জানা পরে দেশের স্বাধীনতা আন্দোলনের সময় ১৯৪২ সালে সেই পটাশপুর থানা দখল করে পটাশপুর জাতীয় সরকার । মাঝে সময়ের প্রয়োজনে সামান্য কিছু সংস্কার হলেও ,বর্তমানে এই থানা বয়সের ভারে জীর্ণ। সম্প্রতি রাজ্যের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া আমফান ঘুর্ণিঝড়ের ফলে পটাশপুর থানার এই ভবনের আরও ক্ষতি হয়।

বিষয়টা নজরে আসার পরেই এবং পটাশপুরের আইনশৃঙ্খলা জনিত পরিকাঠামো উন্নয়নের জন্যে রাজ্য সরকারের পুলিশ হাউজিং প্রকল্পে পটাশপুর থানার নতুন ভবনের জন্য ২ কোটি ৮৫ লক্ষ টাকা বরাদ্দ হয়েছে। ওই প্রকল্পে নতুন দোতালা ভবন ছাড়াও ক্যান্টিন, পুলিশ ও মহিলা পুলিশ ব্যারাক তৈরি করা হবে। পুজোর আগে কাজ শুরু হওয়ার কথা।

পটাশপুর থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক চন্দ্রকান্ত শাসমল বলেন, “রাজ্য সরকারের বরাদ্দ অর্থে পুরনো থানা ভবন ভেঙে নতুন থানা ও পুলিশ ব্যারাক তৈরি হবে। টেন্ডারও হয়ে গিয়েছে। আগামী এক বছরের মধ্যে নতুন থানা ভবন পাবে পটাশপুর।”

ফলে কবে নতুন ভাবন পাবে পটাশপুর থানা সেদিকেই তাকিয়ে স্থানীয় থানার পুলিশ মহল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *