Breaking News

শাসকদলের এক কাউন্সিলারের বিরুদ্ধে চাল পাচারের অভিযোগ

Post Views: website counter

 

কাউন্সিলর নিজে দাঁড়িয়ে থেকে রেশনের চাল পাচার করে নিজের গোডাউনে ঢোকাচ্ছেন,শনিবার এমনি ছবি টুইট করে তোপ দাগেন কেন্দ্রীয় বিজেপি নেতা কৈলাশ বিজয় বর্গীয়।অভিযুক্ত কাউন্সিলের ছবি সহ এই কর্মকাণ্ডে শনিবার দিন ভর সরগরম হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়াতেও।আর তা নিয়েই শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপানোতোর।

শ্রীরামপুরের বিজেপি সভাপতি শ্যামল বোস অভিযোগ করেন শ্রীরামপুর পৌরসভার সাত নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর সন্তোষ সিং কেন্দ্রীয় সরকার অথবা রাজ্য সরকারের দেওয়া চটের বস্তায় চাল ভ্যানে করে পাচার করে নিজের গোডাউনে নিয়ে যাচ্ছেন। এবং সরকারি জিনিস পার্টির নামে মানুষকে দিয়েও দেওয়া হচ্ছে সেই চাল ও ডাল।

এ বিষয়ে নিয়ে জেলা শাসক ও মহকুমাশাসকের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে বিজেপি।বিজেপির অভিযোগ অবিলম্বে এর তদন্ত করতে হবে।গরীব মানুষের মুখের অন্য এই ভাবে নিয়ে নিচ্ছে তৃনমুলের নেতারা।এদিকে বিজেপির এই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে রবিবার শ্রীরামপুর থানায় লিখিত অভিযোগ করলেন অভিযুক্ত কাউন্সিলর সন্তোষ সিং।

এদিন থানায় সন্তোষ সিং এর সাথে উপস্থিত ছিল উত্তরপাড়ার বিধায়ক প্রবীর ঘোষাল, হুগলি জেলা তৃনমুল সভাপতি দিলীপ যাদব সহ একাধিক তৃনমুল নেতৃত্বরা।কাউন্সিল সন্তোষ সিং দাবি করেন বিজেপির করা এই অভিযোগ সম্পুর্ণ মিথ্যা, কঠিন সময়ে মানুষের পাশে না থেকে শুধু মাত্র রাজনৈতিক প্রতিহিংসার জন্য ওরা এই কাজ করে যাচ্ছে।

লকডাউনের পর থেকে বিভিন্ন মানুষের খাদ্য সামগ্রী দিয়ে সাহায্য করছি আমরা, যে সব জিনিস দেওয়া হচ্ছে সেটি কোথা থেকে কেনা হচ্ছে তার বিল,রসিদ সব আমাদের কাছে আছে। চটের বস্তার চালও কোথা থেকে নেওয়া হয়েছে তার রসিদ ও আমার কাছে আছে।কোর্ট খুললেই কৈলাশ বিজয় বর্গীয় বিরুদ্ধে

আমরা মান হানির মামলা করবো।এদিকে এই ঘটনায় ঘোলা জলে মাছ ধরতে ময়দানে নেমে পরেছে সি পিএম। সিপি এম নেতা শিব মঙ্গল সিং ঘটনার পুর্নাঙ্গ তদন্তের দাবি জানিয়েছে। এ বিষয় নিয়ে আগামি কাল তারা নিয়ম মেনেই একটি বিক্ষোভ দেখাবে বলে জানিয়েছে।সব মিলিয়ে কাউন্সিলের চাল পাচার নিয়ে এখন সরগরম জেলা হস সর্বত্র।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *