Breaking News

গ্রামীন চিকিৎস্যকদের বার্ষিক সম্মেলন

Post Views: website counter

 

পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পাঁশকুড়া প্রতাপপুর নিম্ন বুনিয়াদি বিদ্যালয়ে দ্বারিবেড়া প্রগ্রেসিভ মেডিকেল প্রাকটিশনার্স ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন এর বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় রবিবার। এই অনুষ্ঠানে বিশিষ্ট্য অতিথিদের মধ্যে পাঁশকুড়া পৌরসভার চেয়ারম্যান নন্দ মিশ্র উপস্থিত ছিলেন।নন্দ মিশ্র তাঁর ভাষনে গ্রামীন চিকিৎস্যকদের কাজের ভুয়সী প্রশংসা করেন ।

দ্বারিবেড়া প্রগ্রেসিভ মেডিকেল প্রাকটিশনার্স ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন এর অন্যতম কর্মকর্তা অজিত সামন্ত বলেন গ্রামীণ চিকিৎসকরা অর্থের কথা চিন্তা না করে মানুষের সেবায় নিজেকে দিনরাত নিয়োজিত করে রেখেছে। অথচ এই গ্রামীণ ডাক্তারবাবুরা আজ অবহেলিত ও অপমানিত। তারা তাদের প্রাপ্য সম্মানটুকু সমাজের কাছে পায় না। তাদেরকে হেনস্থা হতে হয় অনেক রকম ভাবে।

ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন বেশী গুরুত্ব দেওয়া হয় সরকারী নিয়মনুযায়ী পাশ করে আসা চিকিৎস্যকদের । অথচ মহামারি করোনার প্রকোপের সময় পাশ করা ডাক্তাররা মানুষের সেই ভাবে পাশে না থাকলেও এই গ্রামীন চিকিৎস্যকেরা নিজেদের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রয়োজনে বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে মানুষের পাশেভদাঁড়িয়েছে। তাই আমরা চাই আগামী দিনে আমাদের এই অপমানিত বোধ না হতে হয় এবং আমরা প্রকৃত ডাক্তারের সম্মান পেতে পারি।একটা দাবি পত্রও তাঁরা নন্দ মিশ্রের হাতে তুলে দেন।

নন্দ মিশ্র বলেন দেশের অন্যান্য প্রান্তের থেকে এই রাজ্যের স্বাস্থ্য পরিষেবা অনেক বেশী উন্নত ।সাধারন মানুষের নাগালের মধ্যে।মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রচেষ্টায় এটা সম্ভব হয়েছে।বলেন সরকারি নিয়ম অনুযায়ী পাশ করে আসা চিকিৎস্যকদের পাশাপাশি গ্রামীন চিকিৎস্যকেরাও রাজ্যের সাফল্যের অন্যতম সহযোগী।তাই তাঁদের পাশে আরো বেশী করে দাঁড়ানো প্রয়োজন বলে আমি বিশ্বাস করি।পাঁশকুড়ার পৌর প্রধান জানিয়েছেন রাজ্যের মন্ত্রী সৌমেন মহাপাত্রের মাধ্যমে এই আবেদন পত্র মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর কাছে পাঠিয়ে দেবেন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *