Breaking News

জমে উঠেছে দক্ষিণ কলকাতার তালতলার মাঠে “একুশে বই উৎসব”

Post Views: website counter

ইন্দ্রজিৎ আইচ

বই মানেই নতুন কিছু জানা, বই মানেই শুধু পড়া নয়, প্রিয় জনকে উপহার দেওয়া পাশাপাশি নিজের শিক্ষার মান কে আরো উন্নত করা। আর এর বই মেলাই পারে সেই অসম্ভব কে সম্ভব করতে।
পাবলিশার্স এন্ড বুক সেলারর্স গিল্ড আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের দিন অর্থাৎ ২১ ফেব্রুয়ারি থেকে আয়োজন করেছে দক্ষিণ কলকাতার তালতলার মাঠে “একুশে বই উৎসব”।

এই বই মেলা চলবে ২৮  ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। প্রতিদিন দুপুর ২ টো থেকে রাত ৯ টা পর্যন্ত খোলা থাকছে। কোভিড ১৯ এর কারণে সব রকম সরকারি স্বাস্থ্য বিধি মেনে এই বই মেলা হচ্ছে। জানালেন এই বইমেলার সভাপতি ত্রিদিব কুমার চট্টোপাধ্যায়।

এক সাক্ষাৎকারে এই বই মেলার সাধারণ সম্পাদক সুধাংশু শেখর দে বল্লেন ১০% ছাড় দেওয়া হচ্ছে প্রতিটা বই এর কেনা কাটার ওপর। প্রতিদিন সন্ধ্যায় মেলার মঞ্চে থাকছে গান, বাজনা, আবৃত্তি ও বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। আছে পাণ্ডুলিপি, বেস্টবুকস, দেব সাহিত্য কুটির, পত্র ভারতী, কিশোর ভারতী, দেজ সহ কলকাতার নামি দামি পুস্তক বিক্রেতা ও প্রকাশক।

গত ২১ ফেব্রুয়ারি রবিবার সন্ধ্যায় এই বই মেলার উদ্বোধন করেছেন বিখ্যাত সাহিত্যিক শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায়। ছিলেন বাংলাদেশ এর উপ হাই কমিশনার উপ রাষ্ট্রদূত জনাব তৌফিক হাসান। ছিলেন নৃসিংওপ্রসাদ ভাদুরী, বাণী বসু, আবুল বাসার, কবি সুবোধ সরকার, অমর মিত্র, স্বপ্নময় চক্রবর্তী, শ্রীজাত, জয়ন্ত দে, বীথি চট্টোপাধ্যায়, বিনতা রায়চৌধুরী, অভিক মজুমদার সহ বহু বিশিষ্ঠ লেখক, কবি সাহিত্যিকরা।

সকলেই এই প্রথম দক্ষিণ কলকাতায় বই মেলার আয়োজন করার জন্য পাবলিশার্স এন্ড বুকসেলার্স গিল্ড কে ধন্যবাদ জানান। উত্তর কলকাতার বই মেলার পর দক্ষিণ কলকাতায় এই একুশে বই উৎসব যেন প্রতি বছর হয় সেই ইচ্ছাও প্রকাশ করেন কেউ কেউ সাহিত্যিক। এবার এই মেলায় মোট ৬৫ টি স্টল হয়েছে ।সব মিলিয়ে জমে উঠেছে সাউথ সিটির সামনে দক্ষিণ কলকাতার তালতলার মাঠে ই, ই, ডি,এফ এর পাশে “একুশে বই উৎসব”।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *