Breaking News

পূর্ব মেদিনীপুরে আরো সংঘবদ্ধ হচ্ছে যুব তৃনমূল কংগ্রেস

Post Views: website counter

 

বিধানসভা নির্বাচনের আগে দলকে আরো শক্তিশালি করে তুলতে উদ্যোগি হল যুব তৃনমূল।তাই সোমবার পূর্ব মেদিনীপুর জেলার কাঁথি শহরে তৃণমূল কংগ্রেসের দলীয় কার্যালয়ে কাঁথি-১ ব্লক তৃণমূল যুব কংগ্রেসের ৮ টি অঞ্চলের সভাপতি, ব্লক তৃণমূল যুব কংগ্রেসের কার্যকরী কমিটির সদস্যবৃন্দ ও জনপ্রতিনিধি সহ স্হানীয় নেতৃবৃন্দের একটি গুরুত্বপূর্ণ সাংগঠনিক সভা আয়োজিত হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন ব্লক তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি গৌতম মাইতি। আজ সভার শুরুতে পূর্ব মেদিনীপুর জেলা তৃণমূল যুব কংগ্রেসের নবনিযুক্ত সভাপতি সুপ্রকাশ গিরি কে পুষ্পস্তবক ও উত্তরীয় দিয়ে সম্বর্ধনা জ্ঞাপন করা হয়।

সংগঠনকে শক্তিশালী করা ও বুথ ভিত্তিক কর্মসূচী রূপায়ণের লক্ষ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি সুপ্রকাশ গিরি, প্রাক্তন সহকারী সভাধিপতি মামুদ হোসেন, রত্নদ্বীপ মান্না,সুবল মান্না,নন্দ মিশ্র, সুরজিৎ নায়ক, সৈয়দ সায়েদুল, নিতাই দাস, কল্লোল ঘোষ,কৌশিক প্রামাণিক প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের কোর কমিটির সদস্য মামুদ হোসেন বলেন তৃণমূল কংগ্রেস থেকে সদ্য বেরিয়ে গিয়ে দুর্নীতিবাজ ও জনবিরোধী নীতির ধারকবাহক বিজেপির পতাকাতলে সামিল হয়ে যারা দুর্নীতি, গনতন্ত্র রোধ,তোলাবাজী র কথা বলে বেড়াচ্ছেন তাঁরাই এতদিন সমস্ত অপকর্মের শিরোমণি ছিলেন। দুর্নীতি, গনতন্ত্রের কন্ঠরোধ, তোলাবাজী ও পরিবারতন্ত্রেকে শিল্পের পর্যায়ে যারা পরিগনিত করেছিলেন তাঁদের মুখে মিথ্যাচার পাগলের প্রলাপ ছাড়া কিছু নয় বলে অভিমত প্রকাশ করেন মামুদ হোসেন। বাবা ও ভাই এখনো সাংসদ ও তৃণমূল কংগ্রেসে।তা সত্বেও তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলা, গালাগালি করা বিশ্বাস ঘাতকতার সমান বলে জানান প্রাক্তন সহকারী সভাধিপতি মামুদ হোসেন।কাঁথির মানুষ অভিজ্ঞতার ভিত্তিতে কাঁথির উন্নয়নে বঞ্চনাকারী ও বিশ্বাসভঙ্গকারীদের যোগ্য জবাব দেবেন বলে আশা প্রকাশ করেন মামুদ হোসেন।

জেলা তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি সুপ্রকাশ গিরি তাঁর বক্তব্যে বর্তমান রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে ও বিশ্বাসঘাতকতার বাতাবরণে তৃতীয় বারের জন্য জননেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে মা-মাটি-মানুষের সরকার প্রতিষ্ঠার জন্য তৃণমূল যুব কংগ্রেসের কর্মীদের বুথ স্তর পর্যন্ত সাংগঠনিক কাজকর্মের প্রসারিত করার পাশাপাশি রাজ্য সরকারের ইতিবাচক ও জনমুখী কার্যক্রম কে মানুষের কাছে তুলে ধরতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *