Breaking News

পেঁয়াজের ঝাঁঝে মানুষের চোখের জল নামছে বাজারে

Post Views: website counter

 

প্রদীপ কুমার সিংহ

আজ সকালেই বারুইপুর কাছারি বাজারে জেলার এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চে হানা দিল।

পেঁয়াজের ঝাঁঝে চোখে জল সাধারন মানুষদের। কলকাতার বাজারের সাথে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে বারুইপুর কাছারি বাজারে পেঁয়াজের দাম। যা কিনতেই নাজেহাল হতে হচ্ছে সাধারন মানুষকে। এর খবর পেয়েই বারুইপুর থানার পুলিশ ও জেলার এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চের আধিকারিকরা শুক্রবার সকালে বাজারে হানা দেয়।

তাঁরা ব্যবসায়ীদের সাথে কথা বলে দাম বৃদ্ধির কারন কি জানতে চান। নির্দিষ্ট দামে তা বিক্রি করার নির্দেশ দেন। পুলিশের আধিকারিকরা খোঁজ নিয়ে দেখেন, খুচরো বাজারে কোন ব্যবসায়ী এক কেজি পেঁয়াজের দাম ৬৫ টাকা,তো কেউ ৬০ টাকা,কেউবা ৭০ টাকা নিচ্ছেন। আবার পাইকারি বাজারে গিয়ে দেখেন কেউ ৬২ টাকা দরে,কেউ ৬৫ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি করছেন। যদিও ক্রেতা একসঙ্গে পাঁচ কেজি নিলে।

নির্দিষ্ট দামে কোন ব্যবসায়ী পেঁয়াজ বিক্রি করছেন না। এমনকি কুলপি রোডের রাস্তার পাশে অধিকাংশ মুদি দোকানে ৮০ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি করা হচ্ছে। এর জেরেই বাজার করতে গিয়ে নাজেহাল হতে হচ্ছে সাধারন মানুষকে। এনফোর্সমেন্ট আধিকারিকরা ব্যবসায়ীদের কাছে দোকানের চালান পত্র দেখতে চাইলে দুই-একজন দোকানদার তা দেখালেও অধিকাংশ ব্যবসায়ী তা দেখাতে পারেননি।

অনেক ব্যবসায়ী পুলিশের কাছে অভিযোগ করেন,কাশিপুরের পোলেরহাট বা বাইরের জায়গা থেকে আড়তদারদের কাছ থেকে পেঁয়াজ আনতে গিয়েই হিমশিম খেতে হচ্ছে। এক বস্তা পিয়াজের দাম ২৩শো থেকে ২৪ শো টাকা পড়েছে। যার কারনে প্রতি কিলো পেঁয়াজের দাম ৫৩-৫৫ টাকায় বিক্রি করতে হচ্ছে।

বাজার করতে এসে অনেক বাসিন্দা বলেন ,আড়তদারদের বিরুদ্ধে অভিযান চালানোর আগে দরকার। আর বাজারে দাম নিয়ন্ত্রণে পুলিসের প্রতিদিন নজরদারি দরকার। তবে নিয়ন্ত্রনে আসবে। তবে এখন যা অবস্থা কয়েক দিন পরে পেঁয়াজের দাম আরো বাড়লেও বাড়তে পারে ব্যবসায়ীরা বলছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *