Breaking News

এনসিবি-র তলব দীপিকা, সারা-শ্রদ্ধা-রাকুলকে

Post Views: website counter

 

বলিউডের মাদক কাণ্ডে চাঞ্চল্যকর মোড়।

কয়েক দিন ধরে কানাঘুষো চলার পরে  মাদক তদন্তে এবার অভিনেত্রী দীপিকা পাডুকোনকে ডেকে পাঠাল এনসিবি। পাশাপাশি ডেকে পাঠানো হয়েছে সারা আলি খান, শ্রদ্ধা কাপুর এবং রাকুলপ্রীত সিংকেও।

আগামী তিন দিনের মধ্যে ওই চার অভিনেত্রীকে এনসিবি অফিসে হাজিরার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে খবর। সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু তদন্তে মাদক যোগের তদন্তে নেমে মুম্বইয়ে মাদক তদন্ত শুরু করেছে নার্কোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি)।

দীপিকা এই মুহূর্তে গোয়ায় পরিচালক শকুন বাত্রার একটি ছবির শুটে রয়েছেন। বিশেষ সূত্রে খবর, গতকাল অর্থাৎ মঙ্গলবার অবধি ছবির শুটিং হলেও আজ অর্থাৎ বুধবার থেকে আপাতত স্থগিত রয়েছে ছবির শুটিং।

ইতিমধ্যেই রিয়া চক্রবর্তী, তাঁর ভাই সৌভিক চক্রবর্তী, সুশান্তের হাউস ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডা, কর্মচারী দীপেশ সাওয়ান্ত-সহ একাধিক মাদক কারবারীকে গ্রেপ্তার করেছে এনসিবি।আগামী ৬ অক্টোবর পর্যন্ত রিয়া, সৌভিক ও স্যাম্যুয়েলকে বিচার বিভাগীয় হেফাজতে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বুধবার বম্বে হাই কোর্টে রিয়া এবং সৌভিকের জামিনের আবেদনের শুনানি ছিল। কিন্তু প্রবল বৃষ্টির কারণে মুম্বইয়ের সমস্ত সরকারি অফিসে ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। তাই আদালতের কাজকর্মও স্থগিত রাখা হয়েছে। শোনা গিয়েছে, নিজের জামিনের আবেদনে নাকি রিয়া দাবি করেছেন, যে মাদক ব্যবহারের জন্য সুশান্ত তাঁকে এবং তাঁর ভাইকে ব্যবহার করেছে।

যাঁকে নিয়ে এত হইচই, সেই দীপিকা পাডুকোন যদিও এই বিষয়ে মুখ খোলেননি। প্রতিক্রিয়া দেননি তাঁর স্বামী রণবীর সিংও।

মঙ্গলবার সুশান্তের প্রাক্তন ট্যালেন্ট ম্যানেজার জয়া সাহা জিজ্ঞাসাবাদের সময় এনসিবিকে জানান, রিয়া, শ্রদ্ধা এবং সুশান্তের জন্য তিনিই সিবিডি অয়েল (গাঁজা থেকে নিষ্কৃত তেলজাতীয় পদার্থ) কিনে দিয়েছিলেন। এনসিবি সূত্রে আরও জানা যাচ্ছে রাকুল এবং সারার নাম বয়ানে উল্লেখ করেন মাদক কাণ্ডে অন্যতম অভিযুক্ত রিয়া চক্রবর্তী। রিয়ার বয়ান অনুযায়ী ‘কেদারনাথ’ ছবির শুটিংয়ের সময় থেকেই মাদকাসক্ত হয়ে পড়েন সুশান্ত। ওই ছবিতে সুশান্তের কো-স্টার ছিলেন সারা। সে সময় সম্পর্কেও ছিলেন তাঁরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *