Breaking News

গণেশ পূজোতে শিশুদের মাক্স ও  খাদ্য সামগ্রী বিতরণ 

Post Views: website counter

 

প্রদীপ কুমার সিংহ 

করোনা সংক্রমণ রোগ প্রায় পাঁচ মাস ধরে চলছে সারা পৃথিবী জুড়ে।যদিও চিন দেশে তার আগে আরম্ভ হয়েছে।এই করোনা সংক্রমণ রোগের জন্যে ভারতে আনলোক দ্বিতীয় পর্যায়ে চলছে এখন।ভারতে প্রায় ২৯ লক্ষ মানুষ আক্রান্ত হয়েছে করোনা সংক্রমণ রোগে আক্রান্ত হয়েছে। ।এখন সারা ভারতে কয়েকটি রাজ্যে লকডাউন চলছে।

স্কুল কলেজ সব বন্ধ। বিশেষ বাচ্চারা সব ঘর বন্দি অবস্থায় আছে।আর পশ্চিমবঙ্গের দক্ষিণ 24 পরগনা জেলার বারুইপুর দত্তপাড়া কাছে পীরপুকুরের বাচ্চাদের মুখে হাসি ফোটাতে এগিয়ে হলো বারুইপুর মহিলা থানার কর্মীরা ও কিছু সংগঠনের সদস্যরা।

করোনা সংক্রমণ অব্যাহত এই উপলক্ষে বারুইপুর মহিলা থানা ও কিছু স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন যৌথ উদ্যোগে বারুইপুরের দত্ত পাড়া মাঝেরহাট পীরপুকুর এ প্রান্তিক 50 জন শিশুর হাতে মাস্ক, টুথপেস্ট এবং হেলথ ড্রিঙ্কস ও খাদ্য সামগ্রিক তুলে দেওয়া হয়।

এই বাচ্চ গুলোর বাবারা কেউ দিনমজুরে,কারোর বাবা আবার রিক্সা চালক কেউ ভয়ান চালক।আবার মা রা ও পরিচারিকার কাজ করে লোকের বাড়ি।কেউ বা গৃহ বধু। এদের পরিবার গুলো দিন আনে দিন খায়।

মূলত ঘর বন্দী শিশুদের একটু আনন্দ দেবার লক্ষে বারুইপুরের সমাজসেবী সংগঠন “ইচ্ছেপূরণ” , “হিন্দোল “-কসবা, “লায়ন্স ক্লাব অব্ কোলকাতা ম্যাগনেটস্” এবং “বারুইপুর মহিলা থানা” বিভিন্ন সামাজিক মুলক কাজে করে। লায়ন্স ক্লাব অব্ কোলকাতা ম্যাগনেটস্ এর বিমানবিহারী দত্ত ও বারুইপুর মহিলা থানার আইসি কাকলি ঘোষ এ ব্যাপারে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেন।

ক্ষুদে শিশুদের অনাবিল আনন্দ আর মায়েদের অমলিন হাসি ছিল দেখার মতো। স্থানীয় যুবকদের আন্তরিক সহযোগিতা ও প্রশংসনীয়। শিশুদের নিয়ে আরও অনেক কাজ করার ইচ্ছা প্রকাশ করেন বিভিন্ন সংগঠনের কর্মকর্তারা। সমাজের সমস্ত স্তরের মানুষকে এইরকম সামাজিক কাজে এগিয়ে আসার আহ্বান ও জানান তাঁরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *